সবচেয়ে লম্বা ও সবচেয়ে খাটো মানুষ!

সবচেয়ে লম্বা ও সবচেয়ে খাটো মানুষ!

অনলাইন ডেস্ক: দুজন পাশাপাশি দাঁড়ালে মনে হয় আইফেল টাওয়ারের পাশে একজন সাধারণ মানুষ দাঁড়িয়ে রয়েছেন! উচ্চতায় এতটাই তফাৎ। কথা হচ্ছে বিশ্বের সবচেয়ে লম্বা পুরুষ তুরস্কের সুলতান কোসেন এবং সবচেয়ে খর্বকায় নারী ভারতের জ্যোতি আমগে-র। মিসরে গিজার পিরামিড এবং স্ফিংসের সামনে এই অসম উচ্চতার দুই ব্যক্তির ফটোশুট ইতিমধ্যে ইন্টারনেট দুনিয়ায় ভাইরাল। সাংবাদমাধ্যম ইনডিপেনডেন্ট জানিয়েছে, মিসরের পর্যটন দপ্তরের অনুরোধে সুলতান এবং জ্যোতি মিসরে যান। পর্যটকদের অন্যতম প্রধান আকর্ষণ গিজার পিরামিড এবং স্ফিংসের সামনে নানা ভঙ্গিতে ছবি তোলেন তাঁরা। সে দেশের পর্যটনের প্রচারেই এই উদ্যোগ নেওয়া হয়। বর্তমানে সুলতানের উচ্চতা ৮ ফুট ৯ ইঞ্চি। জ্যোতির উচ্চতা ২ ফুট ৬ ইঞ্চি। ফলে বোঝাই যাচ্ছে, পাশাপাশি দাঁড়ালে উচ্চতার ফারাক কতটা হবে। দুজনই গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসে নাম তুলেছেন। ৩৬ বছরের সুলতান ২০০৯ সালে বিশ্বের সবচেয়ে লম্বা মানুষের খেতাব পান। বিশ্বে তাঁর আগে মাত্র ৯ জন ৮ ফুট বা তার বেশি উচ্চতা বিশিষ্ট মানুষ হিসাবে রেকর্ড বইয়ে জায়গা পেয়েছেন। ছোটবেলায় পিটুইটারি জায়গ্যান্টিজম রোগে আক্রান্ত হন তিনি। তার ফলেই সুলতানের উচ্চতা এমন মাত্রাছাড়া। অন্য দিকে, পুনের জ্যোতি আমগে অ্যাকোন্ড্রোপ্লাসিয়া বা বামনত্ব রোগে আক্রান্ত হন। জ্যোতির উচ্চতা সাধারণ ভাবে ২ বছরের একটি শিশুর চেয়েও কম।
সূত্র : এইসময়

Leave a Reply