করোনা প্রতিরোধে জনসচেতনতায় তানোরে চলছে প্রশাসনের অভিযান

0

রুহুল আমীন খন্দকার, বিশেষ প্রতিনিধি : রাজশাহীর তানোরে করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে জনসচেতনতায় প্রশাসনের পক্ষ থেকে চালানো হচ্ছে চিরুনি অভিযান। উপজেলার বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে থানা পুলিশেকে সর্বাক্ষণিক টহল দিতে দেখা গেছে। এ অবস্থায় অনেক মানুষ ভয়ে ঘর থেকে বেরুচ্ছে না। আবার কোন কোন স্থানে সাধারণ মানুষ মাক্স বিহিন চলা-ফেরা করলে আইন-শৃংখলা বাহিনী তাদের মাক্স পরতে বাধ্য করছে। এমনকি এক জায়গায় বেশি মানুষের জটলা করলে তাদের তাড়িয়ে দিচ্ছেন।

অপরদিকে, রাষ্ট্রীয় ঘোষণা অনুযায়ী নিত্যপণ্য ও ঔষধের দোকান ছাড়া এখানকার সব  হাট-বাজারের দোকানপাঠ বন্ধ হয়ে গেছে। বুধবার (২৫মার্চ) ২০২০ ইং সকাল থেকে সন্ধা পর্যন্ত উপজেলার কোথাও কোন দোকানপাঠ খোলা দেখা যায়নি। এ ছাড়া করোনা ভাইরাসের পাশাপাশি বিভিন্ন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর নজরদারীতে মানুষ ভয়ে ও আতঙ্কে ঘর থেকে তেমন একটা বেরও হননি। ফলে বাজার এলাকা ছিল প্রায় জনশূন্য।

সরজমিন অনুন্ধানে জানা গেছে, উপজেলায় প্রশাসনের পক্ষ থেকে মাইকিং করার পর সকালে উপজেলার সব হাট-বাজার ও দোকানপাঠগুলো জনশুন্য হয়ে পড়ে। হাতেগুনা কয়েকটি নিত্যপ্রয়োজনীয় কাঁচামাল ও ঔষুধের দোকন ছাড়া সকল দেকানপাট ঘোষণা মোতাবেক বন্ধ রয়েছে।

এছাড়াও তানোর থানার অফিসার ইনর্চাজ (ওসি) রাকিবুল হাসানসহ পুলিশের কয়েকটি দল বিভিন্ন স্থানে জনসচেতনতায় চিরুণী অভিযান শুরু করে। ফলে মাক্স বিহিন কিংবা গনজমায়েত হয়ে সাধারণ মানুষকে বুধবারে সারাদিন ব্যাপি বিশেষ প্রয়োজন ছাড়া বাইরে তেমনটা দেখা যায়নি।

এব্যাপারে তানোর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা অফিসার (টিএইচও) ডাঃ রোজী আরা খাতুন জানান, তানোরে এখন পর্যন্ত কোন করোনা ভাইরাস আক্রান্ত রোগী পাওয়া যায়নি। বিদেশ ফেরত ২৮ জনকে ডাক্তারদের পরামর্শে হোম কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো হয়েছে।

এবিষয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) সুশান্ত কুমার মাহাতো বলেছেন, রাষ্ট্রীয় ভাবে পরবর্তী নির্দেশনা না পাওয়া পর্যন্ত অনির্দিষ্টকালের জন্য এই নিদের্শনা সবার জন্যই বলবদ থাকবে। পাশাপাশি তিনি সবাইকে করোনা ভাইরাস এর ব্যাপারে আরো সচেতন হওয়ার জন্য অনুরোধ জানান।