রাজশাহী জেলা পুলিশের করোনা জয়ী নারী সদস্যকে ফুল দিয়ে অভ্যর্থনা জানালেন এসপি শহিদুল্লাহ

রুহুল আমীন খন্দকার, বিশেষ প্রতিনিধি : প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাস প্রতিরোধ যুদ্ধে সম্মুখ লাইনের যোদ্ধা হিসেবে নিরন্তর কাজ করে চলেছে বাংলাদেশ পুলিশ বাহিনীর প্রতিটি সদস্য। এর’ই ধারাবাহিকতায় কিছুদিন পূর্বে গত (২৭ মে) ২০২০ ইং তারিখে রাজশাহী জেলা পুলিশ লাইন্সের এসএএফ শাখায় কর্মরত নারী কনস্টেবল মোসা. রীমা খাতুনের করোনা পজিটিভ সনাক্ত হয়। পরবর্তীতে পরপর দুই’বার নমুনা টেস্টে নেগেটিভ আসে এর প্রেক্ষিতেই রবিবার (১৪ জুন) ২০২০ ইং সুস্থ হিসেবে রাজশাহী বিভাগীয় পুলিশ হাসপাতাল থেকে ছাড়পত্র দেওয়া হয়।

এ ব্যাপারে জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে তাকে ফুল দিয়ে পুলিশ সুপার কার্যালয় প্রাঙ্গনে অভিন্দন জানান রাজশাহী’র সুযোগ্য পুলিশ সুপার মো. শহিদুল্লাহ বিপিএম, পিপিএম। এ সময় জেলা পুলিশের অন্যান্য অফিসারবৃন্দরাও উপস্থিত ছিলেন। এছাড়া নারী কনস্টেবল মোসা. রীমা খাতুনকে পুলিশ হাসপাতালেও হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের পক্ষ থেকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানানো হয়। করোনার প্রাদুর্ভাব ঠেকাতে প্রথম থেকেই দৃঢ় মনোবল নিয়ে সার্বক্ষণিক সাধারণ জনগনের পাশে থেকে নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছেন রাজশাহী জেলা পুলিশ বাহিনী।

বিষয়টি নিশ্চিত করে রাজশাহী’র অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর) মো. ইফতেখায়ের আলম গণমাধ্যম কর্মীদের বলেন, এই মহামারী প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের শুরু থেকেই নিজেদের জীবনের তোয়াক্কা না করে দেশ ও জাতির কল্যানার্থে নিরদ্বিধায় কাজ করে চলেছে বাংলাদেশ পুলিশ বাহিনী। এর’ই ধারাবাহিকতায় রাজশাহী জেলা পুলিশের সদস্যরা করোনা প্রতিরোধে সম্মুখ যুদ্ধে কাজ করে চলেছেন। আর এতে করেই বেশ কিছু পুলিশ কর্মকর্তা ও সদস্যরা আক্রান্ত হয়েছেন অনেকে দিয়েছেন আত্মবলিদান। অকালে ঝরে গেছে অনেক তাজাপ্রাণ আবার অনেকে সুস্থ হয়ে ফিরে এসেছেন নিজ কর্মস্থলে। এমনি এক করোনা জয়ী নারী পুলিশ সদস্য রীমা খাতুনকে রাজশাহী জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে শ্রাদ্ধীয় পুলিশ সুপার মো. শহিদুল্লাহ বিপিএম, পিপিএম মহোদয় স্যার কতৃক ফুল দিয়ে অভ্যর্থনা জানানো হয়।